সোনালী ই ওয়ালেট ২০২৩ । প্রবাসীরা বিদেশে বসেই ব্যাংকিং লেনদেন করতে পারবেন

সোনালী ই ওয়ালেট ২০২৩ । প্রবাসীরা বিদেশে বসেই ব্যাংকিং লেনদেন করতে পারবেন

প্রবাসীদের এখন আর বন্ধু-বান্ধব বা অন্য কাউকে দিয়ে ব্যাংকিং লেনদেন করাতে হবে না – দূর প্রবাসে বসেও ব্যাংকিং কাজ সারতে পারবেন– সোনালী ই ওয়ালেট ২০২৩

সোনালী ই ওয়ালেট– আপনার মোবাইলে যদি একটি সোনালী ই ওয়ালেট থাকে তবে আপনি বিদেশে বসেও সোনালী ব্যাংকের লেনদেন করতে পারবেন। ব্যালেন্স জমা হয়েছে কিনা, অর্থ ট্রান্সফার, অন্য ব্যাংকে পাঠানো, মোবাইল ব্যাংকিংয়ে পাঠানো, বিল পরিশোধ বা যে কোন আর্থিক কাজ অ্যাপের মাধ্যমে নিজেই সেরে নিতে পারবেন। Sonali e wallet APK । সোনালী ই ওয়ালেট চার্জ

প্রযুক্তিনির্ভর আধুনিক ব্যাংকিংসেবা বিশ্বের যেকোনো প্রান্তে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশিদের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে এখন থেকে সোনালী ব্যাংক লিমিটেডের e-Wallet থেকে বিদেশ হতেও লেনদেন করা যাবে। বহুল আকাঙ্ক্ষিত এ সেবার শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। এ সেবা চালু হলে Sonali e-Wallet এর মোবাইল অ্যাপের Android এবং iOS ভার্সনের মাধ্যমে বিদেশ হতে লেনদেন এবং দেশের অভ্যন্তরে QR Code Based Cash Payment লেনদেন করা যাবে। Sonali e wallet Download । সোনালী ই ওয়ালেটে নতুন অপশন চালু করা হয়েছে

অ্যাপ ব্যবহারের ক্ষেত্রে ব্যাংকের ব্রাঞ্চ হতে অ্যাপের অনুমোদন করিয়ে নিতে হয়। কল করে বা স্বশরীরে গিয়ে একবার অ্যাপ একটিভ করে নিলেই দেশ বা বিদেশে যে কোন স্থান হতে ব্যাংকিং লেনদেন করা যাবে। এখন ক্যাশ লেনদেনের কোন প্রয়োজনই নেই। আপনি যে কোন ব্যাংকে বা যে কারও একাউন্টে মুহুর্তেই টাকা পাঠাতে পারবেন। তা সে সোনালী বা অন্য যে কোন সরকার বা বেসরকারি ব্যাংকের সাথে BEFTN ব্যবহার করে লেনদেন করতে পারবেন। সোনালী ব্যাংক এজেন্ট ব্যাংকিং ২০২২ । লেনদেন সহজীকরণে সোনালী ব্যাংক এজেন্ট এখন হাতের কাছেই

ডিজিটাল ব্যাংকিং জগতে সোনালী ব্যাংক এখন একধাপ এগিয়ে / প্রবাসে বা বিদেশে বসেই কি অ্যাপে লেনদেন করা যাবে? 

সোনালী ব্যাংকের এটিএম লোকেশন অ্যাপ থেকেই জানতে পারবেন। আপনার আশেপাশে এটিএম তথ্য অ্যাপে পাবেন।

Sonali Bank e wallet । সোনালী ব্যাংক ই ওয়ালেট দিয়ে কি কি করা যায়?

সোনালী ই ওয়ালেট সুবিধা । যে সকল কাজ অ্যাপের মাধ্যমে করতে পারবেন।

  1. সোনালী ব্যাংকের এক হিসাব হতে অন্য হিসাবে টাকা স্থানান্তর করতে পারবেন।
  2. BEFTN এর মাধ্যমে অন্য যে কোন ব্যাংকের হিসাবে ব্যালেন্স ট্রান্সফার করতে পারবেন।
  3. ওয়ালেট হিসাব হতে অন্য ওয়ালেট হিসাবে ব্যালেন্স ট্রান্সফার করতে পারবেন।
  4. মোবাইল রিচার্জ করতে বা করে দিতে পারবেন।
  5. নিজ একাউন্টের ব্যালেন্স চেক করতে পারবেন যে কোন সময়ই।
  6. ব্যাংক স্ট্যাটমেন্ট চেক বা ব্যাংক হিসাব বিবরণী অ্যাপেই চেক করতে পারবেন।
  7. ইউটিলিটি বিল (গ্যাস বিদ্যুৎ, পানি ইত্যাদি) অ্যাপ হতে প্রদান করতে পারবেন।
  8. চার্জ ছাড়াই যেকোনো ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ড এর বিল প্রদান করা যায়।
  9. ডিপোজিট স্কিম হিসাবে কিস্তি জমাকরণসহ কাজও অ্যাপ হতেই করতে পারবেন।
  10. দেশের অভ্যন্তরে বিকাশের মত মার্চেন্ট পেমেন্ট বা মুদি দোকানের বিল পে করতে পারবেন QR-Code ব্যবহার করেই।
  11. বিনিময় ব্যবহার করে বিকাশ বা যে কোন বিনিময় একাউন্টে টাকা পাঠাতে পারবেন।

সোনালী ই ওয়ালেট অ্যাপ কোথায় পাবো?

আপনার এন্ড্রয়েড ফোন বা আইফোনে আপনি গুগলে প্লে স্টোর বা অ্যাপল স্টোর হতেই এটি ডাউনলোড বা ইনস্টল করতে পারবেন। ইনস্টল করার পর আপনি অ্যাপ হতে Register or Signup করবেন। ব্যাংক তথ্য ও ব্যক্তিগত তথ্য দিয়ে ফর্ম সাবমিট করবেন। ব্যাংকে যোগাযোগ করে অ্যাপের আবেদন অনুমোদন করিয়ে নিবেন। সোনালী ই ওয়ালেট ব্যবহার করুন এবং উপভোগ করুন ডিজিটাল ব্যাংকিং।

সোনালী ই ওয়ালেট বিনিময় একাউন্ট ২০২২ । সোনালী ই ওয়ালেট এর মাধ্যমে বিকাশ বা যে কোন ব্যাংকে লেনদেন করা যাবে

(Visited 245 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *