HSC Exam Routine 2023 । এইচ.এসসি পরীক্ষার সময়সূচি ডাউনলোড করুন

HSC Exam Routine 2023 । এইচ.এসসি পরীক্ষার সময়সূচি ডাউনলোড করুন

উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট পরীক্ষা ২০২৩ নিম্নবর্ণিত সময়সূচি অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হবে। বিশেষ প্রয়োজনে বোর্ড কর্তৃপক্ষ এ সময়সূচি পরিবর্তন করতে পারবে-HSC Exam Routine 2023

ব্যবহারিক পরীক্ষা কবে হবে? – ১০/০৯/২০২৩ তারিখে অনুষ্ঠিতব্য প্রকৌশল অঙ্কন ও ওয়ার্কশপ প্র্যাকটিস-১ম পত্রের পরীক্ষা পরীক্ষার্থীদের নিজ নিজ কলেজে অনুষ্ঠিত হবে। সংশ্লিষ্ট কলেজের অধ্যক্ষ উক্ত তারিখ সকাল ৯.০০ টায় মূল কেন্দ্র হতে প্রশ্নপত্র সংগ্রহ করে পরীক্ষা গ্রহণ করবেন। ড্রইং শিটে পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে। তবে প্রবেশপত্রে উল্লিখিত কেন্দ্র কোড শিরোনামপত্রে এবং যাবতীয় কাগজপত্রে ব্যবহার করতে হবে ।

২৬/০৯/২০২৩ হতে ০৪/১০/২০২৩ তারিখ পর্যন্ত। (উল্লিখিত তারিখের মধ্যে অবশ্যই পরীক্ষা সম্পন্ন করতে হবে এবং ০৫/১০/২০২৩ তারিখের মধ্যে ব্যবহারিক নম্বর অনলাইনে এন্ট্রি সম্পন্ন করে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অথবা তাঁর প্রতিনিধিকে হাতে হাতে ব্যবহারিক উত্তরপত্র, স্বাক্ষরলিপি ও অন্যান্য কাগজপত্রাদি রোল নম্বরের ক্রমানুসারে সাজিয়ে অত্র বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকের নির্দেশনা অনুযায়ী জমা দিতে হবে)।

সরকারি এইচএসসি পরীক্ষার রুটিন বহুত সময় পর প্রকাশিত হয়। রুটিন প্রকাশ হওয়া সময়ে সরকারি শিক্ষা বোর্ড তারিখ ও সময়সূচী প্রকাশ করে যা অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে পাওয়া যায়। সাধারণত এইচএসসি পরীক্ষার রুটিন প্রকাশ হওয়ার আগেই তারিখ ও সময়সূচী প্রকাশিত হয় যা সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের কাছে প্রদান করা হয়। পরীক্ষার রুটিনে অংশ নেওয়া হয় পরীক্ষার তারিখ, সময়, পরীক্ষার নাম, পরীক্ষার সংখ্যা, সময়সূচী প্রদানের নির্দেশনা ইত্যাদি।

এইচ.এসসি পরীক্ষার সময়সূচী দেখুন /এইচ.এসসি বোর্ড পরীক্ষা ভবিষ্যত ডাক্তার বা ইঞ্জিনিয়ার বা যে কোন সাধারণ শিক্ষার্থীর জন্য গুরুত্বপূর্ণ ধাপ

এইচএসসি (Higher Secondary Certificate) পরীক্ষা বাংলাদেশের মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের একটি পরীক্ষা যা দ্বাদশ শ্রেণি থেকে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা পূর্ণ করতে পার্যন্ত প্রদান করা হয়।

এইচ.এসসি পরীক্ষার সময়সূচি ডাউনলোড করুন

যা মেনে চলতে হবে । এইচ.এসসি পরীক্ষার্থীদের প্রতি বিশেষ নির্দেশাবলি 

  1. পরীক্ষা শুরুর ৩০ (ত্রিশ) মিনিট পূর্বে অবশ্যই পরীক্ষার্থীদেরকে পরীক্ষা কক্ষে আসন গ্রহণ করতে হবে।
  2. প্রথমে বহুনির্বাচনি ও পরে সৃজনশীল/রচনামূলক (তত্ত্বীয়) পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।
  3. ৩০ নম্বররের বহুনির্বাচনি (MCQ) পরীক্ষার ক্ষেত্রে সময় ৩০ মিনিট এবং ৭০ নম্বরের সৃজনশীল (CQ) পরীক্ষার ক্ষেত্রে সময় ২ ঘণ্টা ৩০ মিনিট ।
  4. ব্যবহারিক বিষয় সম্বলিত পরীক্ষার ক্ষেত্রে ২৫ নম্বরের বহুনির্বাচনি (MCQ) পরীক্ষার ক্ষেত্রে সময় ২৫ মিনিট এবং ৫০ নম্বরের সৃজনশীল (CQ) পরীক্ষার ক্ষেত্রে সময় ২ ঘণ্টা ৩৫ মিনিট।
  5. পরীক্ষা বিরতিহীন ভাবে প্রশ্নপত্রে উল্লেখিত সময় পর্যন্ত চলবে। MCQ এবং CQ উভয় অংশের পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না ।
  6. ক) সকাল ১০.০০ টা থেকে অনুষ্ঠেয় পরীক্ষার ক্ষেত্রে: সকাল ০৯.৩০ মি. অলিখিত উত্তরপত্র ও বহুনির্বাচনি OMR শিট বিতরণ । সকাল ১০.০০ টা বহুনির্বাচনি প্রশ্নপত্র বিতরণ । সকাল ১০.৩০ মি. বহুনির্বাচনি উত্তরপত্র (OMR শিট) সংগ্রহ ও সৃজনশীল প্রশ্নপত্র বিতরণ। (২৫ নম্বরের বহুনির্বাচনি পরীক্ষার ক্ষেত্রে এ সময় ১০.২৫মি.) (খ) দুপুর ০২.০০ টা থেকে অনুষ্ঠেয় পরীক্ষার ক্ষেত্রে: দুপুর ০১.৩০ মি. অলিখিত উত্তরপত্র ও বহুনির্বাচনি OMR শিট বিতরণ । দুপুর ০২.০০ টা বহুনির্বাচনি প্রশ্নপত্র বিতরণ। দুপুর ০২.৩০ মি. বহুনির্বাচনি উত্তরপত্র (OMR শিট) সংগ্রহ ও সৃজনশীল প্রশ্নপত্র বিতরণ । (২৫ নম্বরের বহুনির্বাচনি পরীক্ষার ক্ষেত্রে এ সময় ০২.২৫মি.)
  7. প্রশ্নপত্রে উল্লিখিত সময় অনুযায়ী পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।
  8. পরীক্ষার্থীগণ তাদের প্রবেশপত্র নিজ নিজ প্রতিষ্ঠান প্রধানের নিকট হতে সংগ্রহ করবে।
  9. প্রত্যেক পরীক্ষার্থী সরবরাহকৃত উত্তরপত্রে তার পরীক্ষার রোল নম্বর, রেজিস্ট্রেশন নম্বর, বিষয় কোড ইত্যাদি ওএমআর ফরমে যথাযথভাবে লিখে বৃত্ত ভরাট করবে। কোন অবস্থাতেই মার্জিনের মধ্যে লেখা কিংবা অন্য কোন প্রয়োজনে উত্তরপত্র ভাঁজ করা যাবে না ।
  10. পরীক্ষার্থীকে তত্ত্বীয়, বহুনির্বাচনি ও ব্যবহারিক অংশে(প্রযোজ্য ক্ষেত্রে) পৃথকভাবে পাস করতে হবে।
  11. প্রত্যেক পরীক্ষার্থী কেবল রেজিস্ট্রেশন কার্ড ও প্রবেশ পত্রে উল্লিখিত বিষয়/বিষয়সমূহের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে। কোন অবস্থাতেই অন্য বিষয়ের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে না ।
  12. কোন পরীক্ষার্থীর পরীক্ষা নিজ কলেজ/প্রতিষ্ঠানে অনুষ্ঠিত হবে না, পরীক্ষার্থী স্থানান্তরের মাধ্যমে আসন বিন্যাস করতে হবে।
  13. পরীক্ষার্থীগণ পরীক্ষায় সাধারণ সাইন্টিফিক ক্যালকুলেটর (Non programmable) ব্যবহার করতে পারবে। প্রোগ্রামিং ক্যালকুলেটর ব্যবহার করা যাবে না।
  14. পরীক্ষা কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ছাড়া অন্য কেউ মোবাইল ফোন ব্যবহার করতে পারবেন না এবং কোন পরীক্ষার্থী পরীক্ষা কেন্দ্রে মোবাইল ফোন আনতে পারবে না।

বোর্ড পরীক্ষার প্রস্তুতি কিভাবে নিতে হয়?

এইচএসসি পরীক্ষা প্রস্তুতি গ্রহণ করার জন্য কিছু প্রাথমিক ধাপ অনুসরণ করা যায়। এই ধাপগুলো আপনার প্রস্তুতির কার্যক্রমে সাহায্য করতে পারে। প্রথমে আপনাকে পরীক্ষার নথিপত্র সম্পর্কে ভালোভাবে জানতে হবে। নথিপত্রে পরীক্ষার ধরন, প্রশ্নের প্রকার, সময়সীমা ইত্যাদি থাকতে পারে। নথিপত্রের ভিত্তিতে আপনাকে পাঠ্যপুস্তক পড়তে হবে। প্রশ্নবলী, ব্যাখ্যা, সূত্রপত্র ইত্যাদি বুঝতে এবং উত্তর লেখার প্রক্রিয়া শিখতে হবে।আপনার পূর্ববর্তী বছরের পরীক্ষার প্রশ্নপত্রগুলো অনুশীলন করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *