ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া মোটরসাইকেল চালানোর শাস্তি ২০২২ । জরিমানা এড়াতে যে কাগজপত্রগুলো সাথে রাখতে হবে

ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া মোটরসাইকেল চালানোর শাস্তি ২০২২ । জরিমানা এড়াতে যে কাগজপত্রগুলো সাথে রাখতে হবে

রাস্তার জরিমানা এড়াতে লাইসেন্স সম্পর্কে সতর্ক থাকুন, ড্রাইভিং লাইসেন্স বা গাড়ির লাইসেন্স সব সময় আপডেট রাখুন – ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া মোটরসাইকেল চালানোর শাস্তি ২০২২

ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া গাড়ি চালালে নতুন মোটরযান আইন (সংশোধনী) ২০১৯ অনুসারে ৫০০০ টাকা জরিমানা – দ্রুতগতিতে গাড়ি চালালে ১০০০-২০০০ টাকা পর্যন্ত জরিমানা– ড্রাইভিং লাইসেন্স না থাকলে জরিমানা কত ২০২২

বাইক চালকগণের অবশ্যই গাড়ি চালানোর ক্ষেত্রে কিছু জরিমানা সংক্রান্ত আইন জানা জরুরি। হেলমেট না থাকলে তিন মাসের জন্য লাইসেন্স বাতিল । মটরযান অধ্যাদেশ ১৯৮৩ আইন সংশোধন ২০১৯ অনুসারে হেলমেট ছাড়া /সীটবেল্ট ছাড়া গাড়ী চালালে ১০০০ টাকা জরিমানা হতে পারে। ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া বাইক বা মোটরযান চালানর ক্ষেত্রে ৫০০০ টাকা জরিমানা। বিপদজ্জনক ভাবে গাড়ি চালালে ৫০০০ টাকা পর্যন্ত জরিমানা। জরুরী ভিত্তিক গাড়িকে পথ না ছাড়লে ১০,০০০ টাকা জরিমানা।  ট্রাফিক আইন জরিমানা মোটরসাইকেল ২০২২ । হেলমেট না থাকলে জরিমানা কত টাকা

ড্রাইভিং লাইসেন্স ব্যাতীত মোটরযান ও গণপরিবহণ চালনার বিধি-নিষেধ সংক্রান্ত ধারা ৪ এবং ৫ এর বিধান লঙ্ঘনের দণ্ড ৬৬। যদি কোনো ব্যক্তি ধারা ৪ এবং ৫ এর বিধান লঙ্ঘন করেন, তাহা হইলে উক্ত লঙ্ঘন হইবে একটি অপরাধ, এবং তজ্জন্য তিনি অনধিক ৬ (ছয়) মাসের কারাদণ্ড, বা অনধিক ২৫ (পঁচিশ) হাজার টাকা অর্থদণ্ড, বা উভয়দণ্ডে দণ্ডিত হইবেন।  সড়ক পরিবহণ আইন, ২০১৮

ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া বাইক চালাবেন না / লাইসেন্স ছাড়া গাড়ি চালনার ক্ষেত্রে ৫০০০ টাকা জরিমানা ধার্য্য রয়েছে।

নতুন মোটরযান আইন (সংশোধনী) ২০১৯

Caption: Case for violation of Act 2018

হাই-ওয়ে পুলিশ যে ধারায় মামলা দেবে । যে অপরাধে জেলা জরিমানা হতে পারে।

  • ধারা ৬৭- ড্রাইভিং লাইসেন্স হস্তান্তর সংক্রান্ত ধারা ৬ এর বিধান লঙ্ঘন করলে আপনার যে শাস্তি হবে, অনধিক ৫ হাজার টাকা জরিমানা অথবা অনধিক ১ মাস জেল।

  • ধারা ৬৮ – বিদেশী নাগরিক দিয়ে এই আইন, বিধি বা প্রবিধানের কোন বিধান বা লাইসেন্স প্রদত্ত শর্ত অমান্য সংক্রান্ত ধারা ৯ এর বিধান লঙ্ঘন করলে আপনার যে শাস্তি হবে, অনধিক ৩০ হাজার টাকা জরিমানা।
  • ধারা ৬৯ – কর্তৃপক্ষ ব্যতিত ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রস্তুত , প্রদান বা নবায়নে বিধি নিষেধ সংক্রান্ত ধারা ১০ এর বিধান লঙ্ঘন করলে আপনার যে শাস্তি হবে, অনূন্য ১ লক্ষ টাকা অনধিক ৫ লক্ষ টাকা জরিমানা অথবা অনূন্য ৬ মাস অনধিক ২ বছরের দন্ড।
  • ধারা ৭০ – ড্রাইভিং লাইসেন্স স্থগিত, প্রত্যাহার বাতিল করা হইলে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি কর্তৃক মোটরযান চালানোর উপর বিধি নিষেধ সংক্রান্ত ১২ এর বিধান লঙ্ঘন করলে আপনার যে শাস্তি হবে, অনধিক ২৫ হাজার টাকা জরিমানা অথবা অনধিক ৩ মাসের দন্ডাদেশ।
  • ধারা ৭১- ড্রাইভিং লাইসেন্স স্থগিত, প্রত্যাহার বাতিল করা হইলে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি কর্তৃক মোটরযান চালানোর উপর বিধি নিষেধ সংক্রান্ত ১২ এর বিধান লঙ্ঘন করলে আপনার যে শাস্তি হবে, অনধিক ৫ হাজার টাকা জরিমানা অথবা অনধিক একমাসের দন্ডাদেশ।
  • ধারা ৯৬ –  মোটর ড্রাইভিং প্রশিক্ষণ স্কুল প্রতিষ্ঠা বা পরিচালনা সংক্রান্ত ধারা ৬৩ এর বিধান লঙ্ঘন করলে আপনার যে শাস্তি হবে, অনধিক ১ লক্ষ টাকা জরিমানা অথবা কর্তৃপক্ষ ড্রাইভিং প্রশিক্ষণ স্কুল বন্ধ করতে পারবে।

লাইসেন্স ফটোকপি কি গ্রহণযোগ্য?

না। গাড়ি চালানার সময় গাড়ির এবং চালাকের লাইসেন্সের অরিজিনাল কাগজপত্র বহন করতে হবে। সড়কে মোটরযান চলানোর ক্ষেত্রে যে কাগজপত্র সাথে রাখতে হবে তা হল- (১) চালকের ড্রাইভিং লাইসেন্স, (২) মোটরযানের নিবন্ধন সনদ (ব্লুবুক), (৩) হালনাগাদ ট্যাক্সটোকেন, (৪) হালনাগাদ ফিটনেস সনদ (মোটরসাইকেল ব্যতিত সকলের), (৫) হালনাগাদ রুট পারমিট (বাণিজ্যিক মোটরযানে।

(Visited 2,286 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *